এবার বৈধতা পাচ্ছে ইজিবাইক

Published: 2019-01-24 15:10:10

প্রতিকী ছবি

নিউজ মিরর ডেস্ক : সারাদেশে এখন অবৈধভাবে চলা বিদ্যুৎচালিত যানবাহনগুলোকে একটি নিয়মের মধ্যে এনে বৈধতা দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। এজন্য একটি খসড়া নীতিমালা তৈরি করেছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ)। তাতে বলা হয়েছে, ইলেকট্রিক মোটরযান চালাতে হলে বিআরটিএ থেকে নিবন্ধন করতে হবে; থাকতে হবে ফিটনেস সনদ, ট্যাক্স টোকেন।

অপ্রতুল বিদ্যুৎ নিয়ে চলা বাংলাদেশে বিদ্যুৎচালিত এই সব যান ব্যবহারের অনুমতি না থাকলেও সারাদেশেই তা চলছে। এর মধ্যে ইজিবাইক নামে পরিচিতি পাওয়া যানগুলোকে মহাসড়কে দুর্ঘটনার জন্যও দায়ী করা হচ্ছে।

বিআরটিএর নতুন উদ্যোগের মধ্য দিয়ে ইজিবাইকেরও বৈধতা পাওয়ার সুযোগ তৈরি হবে। বিআরটিএ কর্মকর্তারা বলেছেন, ইজিবাইক নিবন্ধনের আগে বুয়েটে পরীক্ষা করিয়ে নেওয়া হবে।

গত বছরের ২৬ নভেম্বর ‘ইলেকট্রিক মোটরযানের রেজিস্ট্রেশন ও চলাচল সংক্রান্ত নীতিমালা-২০১৮’ এর খসড়া সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগে পাঠায় বিআরটিএ। পরে গত ৬ জানুয়ারি সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগে একটি পর্যালোচনা সভা হয়।

ওই সভায় বিভাগের সচিব মতামত দেন যে নীতিমালার খসড়ায় যেসব বিষয় বলা হয়েছে, তার বেশিরভাগই বর্তমান মোটরযান আইন ও বিধিতে আছে। এছাড়া ১৯৮৩ সালের মোটরযান আইন অনুযায়ী ইলেকট্রিক বা বিদ্যুৎচালিত মোটরযান নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব হবে, এ কারণে নতুন নীতিমালা তৈরির প্রয়োজন নেই।
সভায় সিদ্ধান্ত হয়, প্রতিবেশী দেশ ভারতে বিদ্যুৎচালিত মোটরযান কীভাবে নিবন্ধন হচ্ছে, কীভাবে চলাচল করছে, তা দেখতে একটি প্রতিনিধি দল পাঠানো হবে। এরপর বিআরটিএ একটি স্বয়ংসম্পূর্ণ প্রস্তাব মন্ত্রণালয়ে পাঠাবে।

মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে প্রস্তাব তৈরির কাজ চলছে বলে জানিয়েছেন বিআরটিএর পরিচালক (রোড সেফটি) শেখ মোহাম্মদ মাহবুব-ই-রব্বানী।
তিনি বলেন, “আমরা একটি খসড়া নীতিমালা পাঠিয়েছিলাম। মন্ত্রণালয় বলেছে, এটি নীতিমালা আকারে না করে অফিস অর্ডার করে দেবে। নীতিমালা করবে না।

“মন্ত্রণালয় আমাদের বলেছে একটি প্রস্তাব পাঠাতে। এটি আমরা এখনও দিইনি। প্রস্তাবনা তৈরির কাজ চলছে।”

ইজিবাইকও এর আওতায় আসবে কি না- এই প্রশ্নে বিআরটিএর এই পরিচালক বলেন, নীতিমালায় পড়লে এ ধরনের যানবাহনও নিবন্ধন পাবে। তবে এজন্য আগে বুয়েট থেকে পরীক্ষায় উর্ত্তীর্ণ হতে হবে।

“আমরা এগুলো বুয়েটে পরীক্ষা করব। পরীক্ষা করে যদি মনে করি তা নিরাপদ, তাহলে আমরা রেজিস্ট্রেশন দেব।”

বিষয়টি নিয়ে এখনও পরীক্ষা-নিরীক্ষা হচ্ছে বলে জানান সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের যুগ্ম-সচিব নূর মোহাম্মদ মজুমদার।

তিনি সোমবার বলেন, “নীতিমালাটি কীভাবে করা যায়, তা নিয়ে এখন পরীক্ষা-নিরীক্ষা হচ্ছে।

“যানবাহনগুলো চলতে গেলে একটা রেগুলেশন লাগবে। বর্তমান যে বিধি বা আইন আছে, এগুলোর সঙ্গে এটার লাইনআপ করতে হবে। বিভিন্ন আন্তঃমন্ত্রণালয়ের সঙ্গে বৈঠকে বসতে হবে, কেবিনেটের অ্যাপ্রুভালও লাগবে।”

এই উদ্যোগ কেন?
বাংলাদেশে কী পরিমাণ বিদ্যুৎচালিত যান চলে, তার সঠিক কোনো পরিসংখ্যান না থাকলেও শহরাঞ্চল থেকে শুরু করে গ্রামেও এখন প্রচুর ইজিবাইক দেখা যায়।

এই সব যানবাহন চালাতে বিপুল পরিমাণে বিদ্যুতের ব্যবহার হয় বলে তা এতদিন নিরুৎসাহিত করা হচ্ছিল।

এখন বৈধতা দেওয়ার উদ্যোগের কারণ ব্যাখ্যা করে বিআরটিএ পরিচালক রব্বানী বলেন, “পৃথিবীর সব জায়গায় ইলেকট্রিক গাড়ির ব্যাপারে আগ্রহ বাড়ছে। সম্প্রতি বাংলাদেশেও কয়েকটি ইলেকট্রিক কার এসেছে।

“গাড়ি যেহেতু এখানেও আসা শুরু করেছে, স্বাভাবিকভাবেই একে একটা নীতিমালার আওতায় আনতে হবে।”

খসড়া নীতিমালায় বলা হয়েছে, “কার্বন ডাই অক্সাইডের নিঃসরণ কমিয়ে বৈশ্বিক উঞ্চায়ন রোধ করার জন্য বিশ্বে ইঞ্জিনবিহীন মোটরযান ব্যবহারে উৎসাহ বাড়ছে। বাংলাদেশেও এ ধরনের মোটরযান ব্যবহার শুরু হয়েছে বিধায় এগুলোকে নিবন্ধনের আওতায় আনা প্রয়োজন।”

বর্তমানে চলমান গাড়িগুলো কী পরিমাণ বিদ্যুৎ ব্যবহার করে, তার সঠিক তথ্য নেই বিদ্যুৎ বিভাগের কাছে।

তবে প্রতিদিন আড়াইশ থেকে তিনশ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ ব্যবহার হতে পারে বলে ধারণা দিয়েছেন বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের পরিচালক (জনতথ্য) সাইফুল হাসান।

তিনি বলেন, এক সময় এসব যান বন্ধ করে দেওয়ার চিন্তা থাকলেও তা থেকে এখন সরে এসেছেন তারা।

“আমরা আগে মনে করেছিলাম যে এগুলো বন্ধ করে দেওয়া হবে। কিন্তু এখন মনে হচ্ছে যে না, এটা যেহেতু পরিবেশবান্ধব, তাই আমরা এনকারেজ করার চেষ্টা করছি।”

রব্বানী বলেন, “এগুলো যেহেতু প্রচলিত গাড়ি না, এজন্য একে কিভাবে রেজিস্ট্রেশনের আওতায় আনব, তা নীতিমালার ভেতরে আসবে।”

বিআরটিএর কর্মকর্তারা বলছেন, দেশে অনুমতি ছাড়াই লাখের বেশি বৈদ্যুতিক যানবাহন চলাচল করছে। এরমধ্যে ইজিবাইক হিসেবে পরিচিত থ্রি-হুইলারের সংখ্যাই বেশি। এদের বেশিরভাগের অবস্থাই ভালো না, খুবই হালকা। নিবন্ধন পদ্ধতিতে পরীক্ষার ব্যবস্থা চালু হলে আমদানিকারকরা ভালো মানের ইলেকট্রিক থ্রি-হুইলারের আমদানি বাড়বে। সূত্র: বিডিনিউজ

শেয়ার করুন

Print Friendly and PDF

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •    সিকৃবি’র ছাত্র ওয়াসিম হত্যায় ৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা
  •    সিলেটে আলো ও অন্ধকারে একাত্তরের গত্যাহত্যার স্মরণ
  •    শিবগঞ্জে ডাকাত সন্দেহে জনতার প্রতিরোধের মুখে পুলিশ
  •    গোলাপগঞ্জে ইউপি সদস্যের নেতৃত্বে জায়গা দখলের অভিযোগ
  •    জাফলংয়ে ৬শ পিস ইসাবাসহ মহিলা আটক
  •    শাহপরাণে ঘরে আটকে রেখে স্ত্রীকে নির্যাতন, স্বামী আটক
  •    টিলাগড় কল্যাণপুরে ভাঙচুরকৃত শিবমন্দির পরিদর্শন
  •    পড়াশোনার পাশাপাশি খেলাধুলা ও বিনোদন অপরিহার্য
  •    ধুমপান বর্জন করলে ৩৩ভাগ ক্যান্সারের ঝুঁকি হ্রাস করা সম্ভব
  •    আজ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস
  •    নাসরিন আহমদের রোগ মুক্তি কামনায় জাফলংয়ে দোয়া মাহফিল
  •    বঙ্গবন্ধু ছাত্র ফাউন্ডেশনের ক্রিকেট টুর্নামেন্টের উদ্বোধন
  •    মাহা-সিলেট জেলা প্রেসক্লাব ক্রীড়া প্রতিযোগিতার ৩য় দিনের বিজয়ী যারা
  •    আন্তর্জাতিক নারী দিবস উপলক্ষে পল্লীসমাজের মানববন্ধন
  •    আতিয়া মহল ট্র্যাজেডি : বাবা-মেয়ের এক লোমহর্ষক বর্ণনা
  • সাম্প্রতিক অর্থনীতি খবর

  •   গ্যাসের মূল্যবৃদ্ধির সিদ্ধান্ত বাতিল ও সিলেটসহ সর্বত্র গ্যাস সংযোগ চালু করতে হবে : বাসদ
  •   ফ্রিডম হাসপাতালে ৮ কেজি ওজনের টিউমার অপসারণ
  •   সিলেটসহ সর্বত্র গ্যাস সংযোগ চালুর দাবিতে মানববন্ধন
  •   সিলেট চেম্বার নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা, ২৭ এপ্রিল ভোটগ্রহন
  •   সিলেটের চারটি সীমান্ত স্থলবন্দর দিয়ে কয়লা আমদানি বন্ধ
  •   মামলা করে ভারত নিম্নমানের ভিটামিন ‘এ’ কিনতে বাধ্য করেছে!
  •   সিসিকের অভিযান : ৫ম দিনে আদায় ২৯ লাখ টাকা
  •   সিন্ডিকেটের কারসাজি : ধান-চালের দাম বৃদ্ধি
  •   সিসিকের বকেয়া বিল আদায়ে অভিযান : ৩য় দিনে আদায় ২৬ লাখ
  •   দুই জটিল রোগীর চিকিৎসা সহায়তায় বাণিজ্যমেলার অনুদান
  •   নাইকো দুর্নীতি মামলার আসামিদের শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন
  •   বাড়ছে সোনার দাম
  •   আরো এক বছর অর্থমন্ত্রীর দায়িত্ব পালনে রাজি মুহিত
  •   চার দিনের স্বস্তিতে দেশ
  •   ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীরা বিশেষ সুবিধা পাবেন
  •